দোহাজারীতে ৩৮দিন পর উদ্ধার হলো কলেজ ছাত্রের হারানো মোবাইল

মোবাইল ফোন হারিয়ে যাওয়া অথবা চুরি যাওয়া কোনও নতুন ঘটনা নয়। স্মার্টফোন একবার হারিয়ে গেলে তা ফিরে পাওয়া একপ্রকার অসম্ভব বললেই চলে। তবে চট্টগ্রামের চন্দনাইশ উপজেলার দোহাজারী পৌরসভায় শরিয়তপুর থেকে বেড়াতে আসা এক কলেজ ছাত্রের মোবাইল হারিয়ে যাওয়ার ৩৮দিন পর তা উদ্ধার করে মালিকের নিকট হস্তান্তর করেছেন দোহাজারী পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ উপপরিদর্শক (এসআই) মো. বিল্লাল হোসেন।

ঘটনা সূত্রে জানা যায়, চট্টগ্রামের চন্দনাইশ উপজেলার দোহাজারী পৌরসভায় খালার বাড়িতে বেড়াতে এসেছিলেন শরিয়তপুর জেলার নড়িয়া থানার আকসা এলাকার হায়দার মীর এর ছেলে নড়িয়া সরকারি কলেজের ব্যবসায় শিক্ষা ২য় বর্ষের শিক্ষার্থী ইয়াসিন মীর (১৮)।

গত ২২ নভেম্বর সন্ধ্যায় তিনি খালার বাড়ি থেকে দোহাজারী কাঁচা বাজার যাওয়ার পথে তার ব্যবহৃত স্মার্ট মোবাইল ফোনটি হারিয়ে ফেলেন। এ সংক্রান্তে ওই দিনই তিনি চন্দনাইশ থানায় একটি হারানো জিডি এন্ট্রি করেন।

জিডি এন্ট্রির পরবর্তীতে চন্দনাইশ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) পুলিশ পরিদর্শক মো. আনোয়ার হোসেন এর সার্বিক তত্তাবধায়নে দোহাজারী পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ পুলিশ উপপরিদর্শক (এসআই) মো. বিল্লাল হোসেন ও তাদের ফোর্সসহ তথ্য প্রযুক্তির সহায়তায় শুক্রবার (৩০ ডিসেম্বর) বিকালে দোহাজারী পৌরসভা এলাকা থেকে হারিয়ে যাওয়া মোবাইল ফোনটি উদ্ধার করে সন্ধ্যায় মোবাইলের মালিক ইয়াসিন মীরের নিকট হস্তান্তর করেন।

হারানো মোবাইল ফোন ফিরে পেয়ে পুলিশকে ধন্যবাদ জানিয়ে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন কলেজ ছাত্র ইয়াসিন মীর। তিনি বলেন, হারিয়ে যাওয়া মোবাইলটি উদ্ধার হবে এটি কল্পনাও করতে পারিনি। তবে পুলিশের আন্তরিকতায় ৩৮দিন পর মোবাইলটি উদ্ধার হওয়ায় আমি অনেক খুশি।